বাংলাদেশ থেকে ৫ হাজার টন ইলিশ চায় ভারত

আসন্ন দুর্গাপূজা উপলক্ষে বাংলাদেশ থেকে এবারও ৫ হাজার টন ইলিশ মাছ আমদানি করতে চায় ভারত। কলকাতা ফিশ ইম্পোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশন আসন্ন দুর্গাপূজা-২০২৩ উপলক্ষে বাংলাদেশ থেকে ৫ হাজার টন ইলিশ আমদানি করতে চায়। ইতিমধ্যে সংগঠনটির পক্ষ থেকে কলকাতার বাংলাদেশ উপ-হাইকমিশনে চিঠি পাঠিয়েছে।

সোমবার পশ্চিমবঙ্গের দৈনিক আজকাল পত্রিকার এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়।

প্রতিবেদনে বলা হয়, বাংলাদেশ সরকারের পরিকল্পনা রয়েছে গত বছরের চেয়ে এ বছর বেশি পরিমাণে ইলিশ রপ্তানি করার। ২০২২ সালে ২ হাজার ৯০০ টন পাঠানোর অনুমতি পেলেও রপ্তানিকারকরা ১ হাজার ৩০০ টন পাঠাতে পেরেছিলেন।

দেশের ৬৬ ভাগ ইলিশের জোগান বরিশাল থেকে | প্রথম আলো

চাঁদপুরের ফিশারি ঘাট থেকে তোলা ছবি।

 

বাংলাদেশের বাণিজ্য মন্ত্রণালয় সূত্রের বরাত দিয়ে আজকাল জানায়, যেসব প্রতিষ্ঠানকে রপ্তানির অনুমতি দেওয়া হবে, তারা সে অনুযায়ী কাজ করছে কিনা- তা কঠোর নজরদারিতে রাখবে সরকার।

চিঠিতে বলা হয়েছে, গত বছর পূজা উপলক্ষে ২ হাজার ৯০০ টন ইলিশ রপ্তানির অনুমোদন দেওয়া হলেও মাত্র ১ হাজার ৩০০ টন ইলিশ রপ্তানি হয়েছিল। এ বছর তারা ৫ হাজার টন ইলিশ আমদানি করতে চায় বাংলাদেশ থেকে।

চিঠিতে আরও বলা হয়, ঢাকার ইলিশ শুধু রপ্তানিযোগ্য সুস্বাদু মাছই নয়, কলকাতার মানুষ এটাকে ঢাকার পাঠানো বহু মূল্যবান উপহার হিসেবে বিবেচনা করে। একই সঙ্গে উন্নত গুণাগুণ সমৃদ্ধ বড় সাইজের ইলিশ চেয়েছে কলকাতা। বাংলাদেশ বাণিজ্য মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, আসন্ন দুর্গাপূজা উপলক্ষে অন্যান্য বছরের মতো এবারও ভারতে ইলিশ রপ্তানির অনুমতি দিতে যাচ্ছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। ইতিমধ্যে প্রায় ১০০ প্রতিষ্ঠান ইলিশ রপ্তানির অনুমোদন চেয়ে আবেদন করেছে।

 

ইলিশ আহরণে ২২ দিনের নিষেধাজ্ঞা শুরু

ভারতের বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের রপ্তানি শাখা সূত্রের বরাত দিয়ে তারা জানায়, দুর্গাপূজা উপলক্ষে ভারতে এবারও ইলিশ রপ্তানির অনুমোদন দেওয়া হবে। তবে কী পরিমাণ অনুমোদন দেবে সেটি চূড়ান্ত হয়নি।

উল্লেখ্য, ২০১২ সাল থেকে দুর্গাপূজার মওসুমে প্রতি বছর কলকাতায় ইলিশ পাঠিয়ে আসছে ঢাকা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *